সার্বভৌমত্বের চেতনা ও মূল্যবোধকে ধ্বংস করা হচ্ছে

রাজ টাইমস | প্রকাশিত: ১২ জুন ২০২২ ১৭:৫৯; আপডেট: ১২ জুন ২০২২ ১৮:০০

জাতীয়তাবাদী লেখক ফোরামের আলোচনা সভায় বক্তব্য দিচ্ছেন কবি আবদুল হাই শিকদার

বিশিষ্ট লেখক-গবেষক ও সাংবাদিক নজরুল ইনস্টিটিউটের সাবেক নির্বাহী পরিচালক কবি আবদুল হাই শিকদার জিয়ার জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় বলেছেন, রাজনৈতিক নেতৃত্ব যখন আত্মসমর্পণ করেছে তখন জিয়াউর রহমান বিদ্রোহের অগ্নিস্ফুলিঙ্গ হিসেবে আবির্ভূত হন। তিনি বলেন, শাসক জিয়ার বিকল্প এখনও বাংলাদেশে তৈরি হয়নি।

গত শনিবার সন্ধ্যেয় রাজশাহী মহানগরীর একটি রেস্টুরেন্টের কনফারেন্স রুমে জাতীয়তাবাদী লেখক ফোরাম রাজশাহী’র উদ্যোগে ‘জাতিসত্তার রূপকার: জিয়াউর রহমান’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন। ফোরামের সভাপতি ও রাজশাহী এডভোকেট বারের সভাপতি মো. আবুল কাসেমের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. ইফতিখারুল আলম মাসউদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এই সভার প্রধান অতিথি ছিলেন কবি আবদুল হাই শিকদার। প্রধান আলোচক ছিলেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি প্রফেসর ড. এম রফিকুল ইসলাম। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, রাজশাহীর সাবেক মেয়র ও বিএনপি’র কেন্দ্রীয় নেতা মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল, মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক এড. এরশাদ আলী ঈসা, রাবি শিক্ষক ড. তারেক ফজল, রুয়েট প্রফেসর রবিউল সরকার, রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি সরদার আবদুর রহমান, রাজশাহী বারের সাধারণ সম্পাদক পারভেজ টি. জাহেদী, রাবি প্রফেসর ড. জিএম শফিউর রহমান, এড. সাঈদ কবীর সৌরভ, দৈনিক নতুন প্রভাত সম্পাদক কবি সোহেল মাহবুব, আরইউজে নেতা ড. সাদিকুল ইসলাম স্বপন, রাবি ছাত্রদলের আহ্বায়ক সুলতানুল ইসলাম রাহী, মহানগর ছাত্রদলের সেক্রেটারি আকবর আলী প্রমুখ।

সাবেক মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল বলেন, অত্যন্ত সুপরিকল্পিতভাবে একটি দেশের সহযোগিতায় নানা সংগঠন-সংস্থার মাধ্যমে বাংলাদেশের নিজস্ব সাহিত্য, সংস্কৃতি, মূল্যবোধ ও জাতীয় চেতনা ধ্বংস করা হচ্ছে। এর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে না পারলে আমাদের নিজস্ব অস্তিত্বই বিলীন হয়ে যাবে। সভাপতির বক্তব্যে এড. আবুল কাসেম বলেন, জিয়াউর রহমানের প্রবর্তিত স্বাধীনতার চেতনা আমাদেরকে ধরে রাখতে হবে। কবি আবদুল হাই শিকদার বলেন, জিয়া মানেই স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব রক্ষার প্রতীক।

বাংলাদেশকে যদি একটি শরীর ধরা হয় তাহলে তার রুহ বা আত্মা হলো জিয়াউর রহমান। বালাদেশি জাতীয়তাবাদ প্রতিষ্ঠার জন্য আমরা জিয়ার নিকট ঋণী। তিনি আধুনিক বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠারও জনক। তিনি বলেন, এখন পরিবর্তনের জন্য তরুণদের এগিয়ে আসতে হবে। তারাই গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনার নতুন ইতিহাস গড়বে।



বিষয়:


বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top