মেডিকেল ব্যবস্থাপনা ভেঙে পড়ার আশঙ্কা

রাবি মেডিকেলের কিউএস মেশিন দুই বছর ধরে অকেজো

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত: ৩ অক্টোবর ২০২১ ১৮:৩৬; আপডেট: ৩ অক্টোবর ২০২১ ১৮:৩৬

রাবি মেডিকেলে সেন্টারের কিউএস মেশিন দুই বছর ধরে অকেজো

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারের কিউএস মেশিন দুই বছরের বেশি সময় ধরে অকেজো হয়ে পড়ে আছে। এতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ বিশ্ববিদ্যালয় সংশ্লিষ্টরা কার্ড পাঞ্চ করে সিরিয়াল নিতে পারছেন না।

চিকিৎসকরা প্রেসক্রিপশন দিচ্ছেন পূর্বের নিয়মে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, মেডিকেল সেন্টারটি পুরো অটোমেটেড। কিউএস মেশিনগুলো নষ্ট হয়ে পড়ে থাকায় রোগী দেখা ও প্রেসক্রিপশন ম্যানুয়ালি করতে হচ্ছে। তাই পূর্বের চেয়ে কয়েকগুন বেশি সময় লাগছে তাদের। বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় চাপ কম তাই রোগীর চাপ মোকাবেলা করতে পারছেন। তবে বিশ্ববিদ্যালয় খুললে রোগীর চাপে মেডিকেলের ব্যবস্থাপনা ভেঙে পড়ার আশঙ্কা করছেন তারা।

এদিকে কিউএস মেশিন বন্ধ থাকায় নিজ নিজ অসুস্থতার জন্য সংশ্লিষ্ট বিষয়ে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের চিকিৎসা পাচ্ছেন না বলে অভিযোগ করছেন শিক্ষার্থীরা। নূর আলম নামের এক শিক্ষার্থী বলেন, কিউএস মেশিন নষ্ট থাকায় চিকিৎসার জন্য বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের কাছে চিকিৎসা নেওয়ার অপশন সিলেক্ট করার সুযোগ পাচ্ছেন না শিক্ষার্থীরা। তাই মেডিসিন বিভাগের চিকিৎসকের কাছে চিকিৎসা নিতে হচ্ছে অধিকাংশ শিক্ষার্থীকে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারের প্রধান চিকিৎসক ডা. তবিবুর রহমান বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় খোলা থাকলে গড়ে ৫ শত রোগী চিকিৎসা নিতে আসতেন। তবে এখন প্রতিদিন গড়ে শতাধিক রোগী মেডিকেলে চিকিৎসা নিতে আসেন। আবার বিশ্ববিদ্যালয় খোলার সময় হয়েছে। তখন একসাথে ৫ শতাধিক রোগীর চাপ মোকাবিলা করা কঠিন হবে। অটোমেশনের পুরো বিষয়টি দেখে আইসিটি সেন্টার। আমরা এরই মধ্যে তাদেরকে জানিয়েছি। হয় মেশিনগুলো ঠিক করা দরকার না হয় নতুন মেশিন কিনতে হবে। যতদূর জেনেছি এরই মধ্যে মেশিন কেনার জন্য টেন্ডার আহ্বান করা হয়েছে। কেনাকাটার বিষয়ে আইসিটি সেন্টার ভালো বলতে পারবে।

মেশিন কবে নাগাদ পাওয়া যেতে পারে সে বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের আইসিটি সেন্টারের পরিচালক অধ্যাপক বাবুল ইসলাম বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কিউএস মেশিন অর্ডার করেছে। এই মাসের মধ্যে মেশিনগুলো চলে আসবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।



বিষয়:


বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top